আলোচিত খবর

‘অপহরণে পর স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নেন ওরা’

প্রায় ১৬ ঘণ্টা নির্বাক থাকার পর খুলনার সেই আলোচিত

রহিমা বেগম পিবিআইয়ের কাছে দাবি করেছেন, তাকে অপহরণ

করা হয়েছিল। রবিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) জিজ্ঞাসাবাদের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানান পুলিশ ইনভেস্টিগেশন অব বাংলাদেশ (পিবিআই) খুলনার পুলিশ সুপার সৈয়দ মুশফিকুর রহমান। এর আগে শনিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) রাতে ফরিদপুরের বোয়ালমারী থেকে রহিমাকে উদ্ধার করে খুলনা মহানগর পুলিশ। পরে রোববার তাকে পিবিআইয়ের কাছে হস্তান্তর করা হয়। রহিমা বেগম (৫২) বলেন, নিজ বাসার নিচ থেকে চার-পাঁচজন মুখে কাপড় বেঁধে তাকে অপহরণ করে। এ সময় তিনি আরও জানান, স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নিয়ে

তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়। পরে তিনি সেখান থেকে একদিন-একরাত বাসে চড়ে মোকসেদপুর হয়ে ফরিদপুরের বোয়ালমারী উপজেলার সৈয়দপুর গ্রামে চলে যান। তবে ভয়ে খুলনায় আসেননি। এ ছাড়া তার কাছে মোবাইল না থাকায় ও সন্তানদের মোবাইল নম্বর মুখস্থ না থাকায় তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেননি। এ বিষয়ে খুলনার পিবিআইয়ের পুলিশ সুপার সৈয়দ মুশফিকুর রহমান বলেন, রহিমা বেগমের এই বক্তব্য যাচাই-বাছাই করে দেখা হবে। তাকে রোববার আদালতে পাঠানো হয়েছে। আইন অনুযায়ী সবকিছু করা হবে। উল্লেখ্য, গত ২৭ আগস্ট নগরীর মহেশ্বরপাশা এলাকার বাড়ির সামনে থেকে রহস্যজনকভাবে নিখোঁজ হন রহিমা বেগম।

Related Articles

Back to top button