আলোচিত খবর

ছেলের বউ আইভীর জয়ে খুশি শাশুড়ি

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন (নাসিক) নির্বাচনে টানা তৃতীয় বারের

মতো মেয়র নির্বাচিত হয়ে হ্যাটট্রিক করেছেন রাজবাড়ীর পুত্রবধূ ডা.

সেলিনা হায়াৎ আইভী। পুত্রবধূর এই জয়ে খুশি হয়েছেন আইভীর শাশুড়ি কাজী হাবিবা সালেহ। আইভীর জয়ে আনন্দের বাতাস বইছে শ্বশুরবাড়ি রাজবাড়ীতে। সেখানেই মিষ্টি ও ফুল নিয়ে আইভীর শাশুড়ি ও আত্মীয় স্বজনের সঙ্গে দেখা করতে আসছেন দলের নেতাকর্মী ও স্বজনরা। জানা গেছে, সেলিনা হায়াৎ আইভী রাজবাড়ী পৌরসভার ৫ নং ওয়ার্ডের সজ্জনকান্দা এলাকার নিউজিল্যান্ড-প্রবাসী কম্পিউটার প্রকৌশলী কাজী আহসান হায়াতের স্ত্রী। নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন (নাসিক) নির্বাচনে সেলিনা হায়াৎ

আইভী আওয়ামী লীগের ‘নৌকা’ প্রতীক নিয়ে ১৯২টি কেন্দ্রে ১ লাখ ৬১ হাজার ২৭৩ ভোট পেয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী তৈমূর আলম খন্দকার পেয়েছেন ৯২ হাজার ১৭১ ভোট। তাদের ভোটের পার্থক্য ৬৯ হাজার ১০২। ফলে টানা তৃতীয়বারের মতো নারায়ণগঞ্জ সিটির মেয়র হতে চলেছেন সেলিনা হায়াৎ আইভী। সেলিনা হায়াৎ আইভী ১৯৬৬ সালের ৬ জুন নারায়ণগঞ্জের একটি রাজনৈতিক পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। ১৯৯৫ সালের ১৫ নভেম্বর আইভী রাজবাড়ী পৌরসভার বাসিন্দা প্রকৌশলী কাজী আহসান হায়াতের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। আইভী-আহসান দম্পতির কাজী সাদমান হায়াৎ সীমান্ত ও কাজী সারদিল হায়াৎ অনন্ত নামে দুই ছেলেসন্তান রয়েছে। আইভীর বাবাও নারায়ণগঞ্জে এক পরিচিত নাম। তার বাবা আলী আহাম্মদ চুনকা ও মা মমতাজ বেগম। পরিবারের পাঁচ ভাই-বোনের মধ্যে আইভী জ্যেষ্ঠ। আলী আহম্মদ বাংলাদেশ স্বাধীনতা লাভের পর অনুষ্ঠিত নারায়ণগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনে জয়লাভ করে মেয়র হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

Related Articles

Back to top button