Uncategorized

অডিও ফাঁস নিয়ে র‌্যাবকে যে তথ্য দিয়েছে ইমন

সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে অসৌজন্যমূলক বক্তব্য

দেওয়া ও অশালীন কথোপকথনের অডিও ফাঁস হওয়ায় ডা. মুরাদকে

মঙ্গলবারের (৭ ডিসেম্বর) মধ্যে মন্ত্রিসভা থেকে পদত্যাগ করতে বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ নির্দেশনার পর পদত্যাগপত্র জমা দেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী মুরাদ হাসান। সেই অডিও ফাঁসের ইস্যুকে কেন্দ্র করে দেশব্যাপী চলছে আলোচনা-সমালোচনা। সদ্য পদত্যাগ করা তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানের সঙ্গে চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির ফাঁস হওয়া ফোনালাপের বিষয়ে চিত্রনায়ক মামনুন হাসান ইমনকে দীর্ঘ পাঁচ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। তবে জ্ঞাতসারে তার কাছ থেকে অডিও ফাঁস

হয়নি বলে র‌্যাবকে জানিয়েছেন ইমন। অডিওটি কিভাবে ফাঁস হয়েছে এ ব্যাপারে যাবতীয় তথ্য দিয়ে র‌্যাবকে সহয়তা করবেন বলে জানিয়েছেন ইমন। বুধবার (০৮ ডিসেম্বর) সকালে র‌্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত র‌্যাব সদর দপ্তরে ইমনকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। এরপর রাত সোয়া ১১টার দিকে তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়। জিজ্ঞাসাবাদে ইমনের কাছ থেকে চাঞ্চল্যকর বেশকিছু পাওয়া গেছে। এসব তথ্য যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে। কমান্ডার খন্দকার আল মঈন বলেন, জ্ঞাতসারে অডিওটি ফাঁস হয়নি। যেহেতু কথোপকথনটি গত বছরের, সেহেতু তার কাছ থেকে কিভাবে অডিওটি ফাঁস হলো এ বিষয়ে র‌্যাবকে সহয়তা করার কথা জানিয়েছেন ইমন। এর আগে সোমবার (০৬ ডিসেম্বর) রাতে রাজধানীর মিন্টু রোডে ডিবি কার্যালয়ে ফোনালাপের বিষয়ে ইমনকে জিজ্ঞাসাবাদ করে মহানগর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ। সেখানে তার সঙ্গে প্রায় ৪০ মিনিট কথা বলেন ডিবি কর্মকর্তারা। এরপর তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়।

Related Articles

Back to top button